Home Tags Posts tagged with "১৫ লক্ষ টাকা মূল্যের ইয়াবা ট্যাবলেট সহ ০২ জন মাদক ব্যবসায়ীকে আটক করেছে র‌্যাব-৭"

১৫ লক্ষ টাকা মূল্যের ইয়াবা ট্যাবলেট সহ ০২ জন মাদক ব্যবসায়ীকে আটক করেছে র‌্যাব-৭

মোঃআলাউদ্দীন

চট্টগ্রাম মহানগরীর বাকলিয়া থানাধীন শাহ আমানত সেতু এলাকায় অভিযান চালিয়ে আনুমানিক ১৫ লক্ষ টাকা মূল্যের ৪,৯৫০ পিস ইয়াবা ট্যাবলেট উদ্ধারসহ ০২ জন মাদক ব্যবসায়ীকে আটক করেছে র‌্যাব-৭ মাদক পরিবহনে ব্যবহৃত একটি মাইক্রোবাস জব্দ।

র‌্যাব প্রতিষ্ঠালগ্ন থেকে সমাজের বিভিন্ন অপরাধ এর উৎস উদ্ঘাটন, অপরাধীদের গ্রেফতারসহ আইন শৃঙ্খলার সামগ্রিক উন্নয়নে নিরলসভাবে কাজ করে যাচ্ছে। র‌্যাব-৭, চট্টগ্রাম অস্ত্রধারী সস্ত্রাসী, ডাকাত, ধর্ষক, চাঁদাবাজ, সন্ত্রাসী, খুনি, বিপুল পরিমাণ অবৈধ অস্ত্র ও গোলাবারুদ উদ্ধার, মাদক উদ্ধার, ছিনতাইকারী, অপহরণকারী ও প্রতারকদের গ্রেফতারের ক্ষেত্রে জিরো টলারেন্স নীতি অবলম্বন করায় সাধারণ জনগনের মনে আস্থা অর্জন করতে সক্ষম হয়েছে।

র‌্যাব-৭, চট্টগ্রাম গোপন সংবাদের মাধ্যমে জানতে পারে যে, কতিপয় মাদক ব্যবসায়ী মাইক্রোবাস যোগে বিপুল পরিমান মাদকদ্রব্য নিয়ে কক্সবাজার হতে চট্টগ্রামের দিকে আসছে। উক্ত সংবাদের ভিত্তিতে অদ্য ০১ মে ২০২১ ইং তারিখ ০৬৫০ ঘটিকায় র‌্যাব-৭, চট্টগ্রাম এর একটি আভিযানিক দল চট্টগ্রাম মহানগরীর বাকলিয়া থানাধীন চাক্তাই মীর ফিলিং স্টেশনের বিপরীতে মেসার্স হামিদ এন্ড ব্রাদার্স এর সামনে শাহ আমানত সেতু সংযোগ সড়কের উপর একটি বিশেষ চেকপোস্ট স্থাপন করে গাড়ি তল্লাশি শুরু করে। এসময় র‌্যাবের চেকপোস্টের দিকে আসা একটি মাইক্রোবাসের গতিবিধি সন্দেহজনক মনে হলে র‌্যাব সদস্যরা মাইক্রোবাসটিকে থামানোর সংকেত দিলে মাইক্রোবাসটি র‌্যাবের চেকপোস্টের সামনে থামিয়ে দুইজন ব্যক্তি সুকৌশলে পাালিয়ে যাওয়ার চেষ্টা করলে র‌্যাব সদ্যরা ধাওয়া করে আসামি চালক ১। মোঃ রফিকুল ইসলাম রনি (২৭), পিতা- মৃত আব্দুল কুদ্দস, সাং- গোপালপুর, থানা- আলফাডাঙ্গা, জেলা- ফরিদপুর এবং ২। মোঃ হাবিবুর রহমান সোহেল (৪৩), পিতা- আব্দুল মালেক, সাং- কলেজপাড়া, চাতাল মোড়, থানা- আলমডাঙ্গা, জেলা- চুয়াডাঙ্গাদের আটক করে। পরবর্তীতে উপস্থিত সাক্ষীদের সম্মুখে আটককৃত আসামিদের ব্যাপক জিজ্ঞাসাবাদে তাদের দেখানোমতে নিজ দখলে থাকা প্যান্টের পকেট হতে ৪,৯৫০ পিস ইয়াবা ট্যাবলেট উদ্ধারসহ আসামিদের গ্রেফতার করা হয় এবং উক্ত মাইক্রোবাসটি (ঢাকা-মেট্টো-ক-১৫-৯২৪৫) জব্দ করা হয়। গ্রেফতারকৃত আসামিদের জিজ্ঞাসাবাদে আরো জানা যায়, তারা দীর্ঘদিন যাবত কক্সবাজার জেলার সীমান্তবর্তী এলাকা হতে মাদকদ্রব্য সংগ্রহ করে পরবর্তীতে চট্টগ্রামসহ দেশের অন্যান্য অঞ্চলের মাদক ব্যবসায়ীর নিকট বিক্রয় করে আসছে। উদ্ধারকৃত মাদকদ্রব্যের আনুমানিক মূল্য ১৫,০০,০০০/- (পনের লক্ষ) টাকা এবং আটককৃত মাইক্রোবাসের আনুমানিক মূল্য ২০ লক্ষ টাকা।

গ্রেফতারকৃত আসামি ও উদ্ধারকৃত মালামাল সংক্রান্তে পরবর্তী আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণের নিমিত্তে চট্টগ্রাম মহানগরীর বাকলিয়া থানায় হস্তান্তর করা হয়েছে।