Home চট্টগ্রাম

0 0

দেশের চলমান উন্নয়ন অগ্রগতি অব্যাহত রাখতে ও চট্টগ্রামকে একটি বিশ্বমানের সমৃদ্ধ নগর হিসেবে গড়ে তুলতে বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের মনোনীত প্রার্থী বীর মুক্তিযোদ্ধা এম. রেজাউল করিমকে নির্বাচিত করার বিকল্প নেই বলে মন্তব্য করেছেন বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক জননেতা মাহবুব উল আলম হানিফ এমপি।

অদ্য ২১ জানুয়ারি চট্টগ্রাম প্রেসক্লাবের বঙ্গবন্ধু হলে চট্টগ্রামস্থ আমরা মহেশখালীবাসীর উদ্যোগে একমতবিনিময় সভা মহেশখালী-কুতুবদিয়ার সংসদ সদস্য আশেক উল্লাহ রফিক এমপি’র সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত হয়। চট্টগ্রামস্থ মহেশখালী ছাত্র পরিষদের সভাপতি ও চট্টগ্রাম মহানগর ছাত্রলীগের সদস্য মোস্তফা কামালের সঞ্চালনায় প্রধান অতিথি ছিলেন মাহবুব উল আলম হানিফ এমপি।

বিশেষ অতিথি ছিলেন-বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের দপ্তর সম্পাদক ও প্রধানমন্ত্রীর বিশেষ সহকারী ব্যারিস্টার বিপ্লব বড়–য়া, বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় ধর্ম বিষয়ক সম্পাদক এড. সিরাজুল মোস্তফা, কক্সবাজার জেলা আওয়ামী লীগের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি এড. ফরিদুল ইসলাম চৌধুরী, কক্সবাজার জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক মুজিবুর রহমান, কক্সবাজার সদর-রামু আসনের সাংসদ সাইমুন সরওয়ার কমল এম.পি, কানিজ ফাতেমা মোস্তাক এমপি,

কক্সবাজার জেলা আওয়ামী লীগের সাবেক সাধারণ সম্পাদক সালাউদ্দিন সিআইপি। অন্যান্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন মাহফুজুল হায়দার চৌধুরী রোটন, কক্সবাজার আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক নাজনীন সরওয়ার কাবেরী, জেলা আওয়ামী লীগের সদস্য শফিউল আলম, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মাহমুদুল হক মুকুল, কক্সবাজার পৌর আওয়ামী লীগের সভাপতি নজিবুল ইসলাম মুজিব, মহেশখালী পৌর মেয়র মুকসুদ মিয়া, কুতুবদিয়া উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি আওরঙ্গজেব মাতব্বর,

সাবেক চেয়ারম্যান আহসান উল্লাহ বাচ্চু, সাবেক ছাত্রনেতা মাহমুদ সালাউদ্দিন, মাতারবাড়ী ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক হায়দার, এরশাদ চৌধুরী, প্রভাষক মুহাম্মদ আব্দুল হক, জমির উদ্দিন,আওয়ামী লীগ নেতা কুতুবদিয়া উপজেলা যুবলীগের আহŸায়ক আবু জাফর ছিদ্দিকী, নাছির উদ্দিন কুতুবী, মাহফুজ, খাইরুল আমিন, মুজিবুল হক, মনছুর আবেদীন প্রমুখ।

ব্যারিস্টার বিপ্লব বড়–য়া বলেন, বীর মুক্তিযোদ্ধা এম. রেজাউল করিমের মধ্যে সততা, যোগ্যতা, মনুষ্যত্ববোধ এবং চট্টগ্রামের প্রতি প্রবল প্রীতি বিদ্যমান। তাকে বিজয়ী করতে সকলের সম্মিলিত প্রয়াস প্রয়োজন। আশেক উল্লাহ রফিক এমপি বলেন, চট্টগ্রাম শহরে বসবাসরত মহেশখালীবাসীর নৈতিক সমর্থন বীর মুক্তিযোদ্ধা এম. রেজাউল করিমের প্রতি রয়েছে। বীর চট্টলার উন্নয়নকে আরো তরান্বিত করতে নৌকা মার্কায় ভোট দিয়ে রেজাউল করিমকে জয়যুক্ত করার আহবান জানিয়েছেন আশেক উল্লাহ রফিক এমপি।

আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মাহবুবুল আলম হানিফ এমপি আরো বলেন, সন্ত্রাস-নৈরাজ্য এবং উন্নয়নে বাধা সৃষ্টির ফলশ্রæতিতে এদেশের জনগণ বিএনপিকে বারবার প্রত্যাখ্যান করেছে। চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশন নির্বাচনেও ব্যতিক্রম হবে না। চট্টগ্রামবাসী নৌকায় ভোট দিয়ে শেখ হাসিনার হাতকে আরও শক্তিশালী করবে।

তারেক জিয়া লন্ডনে বসে দেশের বিরুদ্ধেনানামুখী ষড়যন্ত্রে লিপ্ত। প্রতিনিয়ত তারেক জিয়ারা কোটি কোটি টাকা কিভাবে খরচ করে সেটাও জাতি জানতে চায়।

সমাজতান্ত্রিক ছাত্র ফ্রন্টের ৩৭ তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উপলক্ষ্যে সমাজতান্ত্রিক ছাত্র ফ্রন্ট চট্টগ্রাম নগর শাখার উদ্যোগে সমাবেশ ও র‍্যালি অনুষ্ঠিত হয় চট্টগ্রামের নিউমার্কেট চত্বরে। সংগঠনের প্রচার সম্পাদক প্রীতম বড়ুয়ার পরিচালনায় সমাবেশে বক্তব্য রাখেন সভাপতি রায়হান উদ্দিন, সাধারণ সম্পাদক ঋজু লক্ষ্মী অবরোধ, সাংগাঠনিক সম্পাদক মিরাজ উদ্দিন ও সংগঠক সাকিব।
সমাবেশে বক্তারা বলেন,
সমাজতান্ত্রিক ছাত্র ফ্রন্ট ১৯৮৪ সালে তার প্রতিষ্ঠালগ্ন থেকেই শিক্ষার মৌলিক অধিকার নিশ্চিতের দাবিতে দীর্ঘদিন ধরে সংগ্রাম পরিচালনা করে আসছে। সর্বজনীন, বিজ্ঞানভিত্তিক, বৈষম্যহীন ও একই পদ্ধতির গণতান্ত্রিক শিক্ষা ব্যবস্থা চালু করার দাবিতে আপোষহীন লড়াই জারি রেখেছে।
শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানগুলো আজ জ্ঞান সংরক্ষণ, বিতরণ  কিংবা নতুন জ্ঞান সৃষ্টির কেন্দ্র না হয়ে বরং পরিণত হয়েছে ব্যবসা প্রতিষ্ঠানে। প্রাথমিক থেকে উচ্চ শিক্ষা পর্যন্ত শিক্ষা আজ কেনা বেচার পণ্যে পরিণত হয়েছে। কোমলমতি স্কুল ছাত্র -ছাত্রীদের কোচিং বাণিজ্য, গাইড বাইয়ের ব্যবসা ও ভর্তিযুদ্ধের মধ্যে ফেলে দেয়া হয়েছে। প্রতিবছর বাড়ছে বেতন ফি। মুষ্টিমেয় ব্যবসায়ী ও লুটেরা ধনিক শ্রেণির হাতে শিক্ষাকে মুনাফা লুটের আয়োজন করে ‘টাকা যার শিক্ষা তার ‘ এই নীতিতে পরিচালিত হচ্ছে গোটা শিক্ষা ব্যবস্থা। ছাত্র – শিক্ষক সম্পর্ক হয়ে পড়েছে ক্রেতা – বিক্রেতার লেনদেনের সম্পর্কে।
প্রাথমিকে প্রতিবছর প্রথম শ্রেণিতে ভর্তি হওয়া ৪৫ লক্ষ শিশুর মধ্যে প্রায় অর্ধেক পঞ্চম শ্রণিতে উঠতে না উঠতেই ঝরে পড়ে। এই চিত্র গোটা শিক্ষা ব্যবস্থার। স্বাধীনতার ৫০ বছরের সামনে দাঁড়িয়েও এদেশের শাসকগোষ্ঠী মানুষের মৌলিক শিক্ষার অধিকার প্রতিষ্ঠা করতে পারেনি। করোনা ভাইরাসের প্রাদুর্ভাবে বিশ্ব আজ পর্যদুস্ত। দুনিয়ার তাবৎ ধনী দেশগুলোতে লুকিয়ে থাকা সীমাহীন বৈষম্যকে নগ্নভাবে উন্মোচিত করল এই ভাইরাস। করোনাকালীন এই সময়ে নানা সংকটে বিপর্যস্ত শিক্ষার্থীদের শিক্ষা জীবন।
অপরিকল্পিত ‘ সাধারণ ছুটির কারণে শিক্ষার্থীরা নানা চাপ ও অনিশ্চয়তায় দিন পার করছে। করোনা সংকটকালীন এই সময়ে শিক্ষা ব্যবস্থায় বিরাজমান বৈষম্য প্রকটভাবে উন্মোচিত হয়েছে। কোনো ধরণের আয়োজন ও প্রস্তুতি ছাড়াই অনলাইন ক্লাস মরার ওপর খাড়ার ঘাঁ হিসেবে এসেছে। বৃহৎ একটা অংশের শিক্ষার্থীরা থাকছে এই অনলাইন ক্লাসের আওতার বাইরে।শিক্ষার্থীদের যৌক্তিক দাবি মেস ভাড়া মওকুফ করতে রাষ্ট্রীয় বরাদ্দ,
স্কুল কলেজের চলতি বছরের বেতন ফি মওকুফ এবং প্রাইভেট বিশ্ববিদ্যালয়ের এক সেমিস্টারের টিওশন ফি মওকুফ করার কোনো কার্যকরী উদ্যোগ রাষ্ট্রের পক্ষ থেকে নেয়া হয়নি। শিল্পপতি, ব্যবসায়ীদের জন্য লক্ষ কোটি টাকা প্রনোদনা ঘোষনা করা হলেও শিক্ষার্থীদের যৌক্তিক দাবি বাস্তবায়নে সরকারের তরফ থেকে ভ্রূক্ষেপ করা হয়নি। ফলে প্রায় অর্ধেক শিক্ষার্থীর শিক্ষাজীবন ইতি টানার উপক্রম হয়েছে।
শাসক শ্রেণি শিক্ষাকে মুনাফা লাভের বাণিজ্যিক পণ্য হিসেবে দেখে। শিক্ষা ও স্বাস্থ্য মানুষের মৌলিক অধিকার হলেও এই দুটি খাতে যে নৈরাজ্য চলছে তা দীর্ঘদিন ধরে চলে আসা বাণিজ্যিক শিক্ষানীতি ও স্বাস্থ্য নীতিরই  ফল। তাই আমরা মনে করি শিক্ষার উপর এই আক্রমণ বন্ধ করে শিক্ষা, গবেষণা ও স্বাস্থ্য খাতে বরাদ্দের দাবিতে আন্দোলন গড়ে তোলা জরুরি।
সমাবেশ বক্তারা দাবি জানান, করোনাকালে শিক্ষা ধ্বংসের অপতৎপরতা বন্ধ করে সকল শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের বেতন ফি মওকুফ করতে হবে এবং স্বচ্ছ, সুনির্দিষ্ট রোডম্যাপ ঘোষণা করে অবিলম্বে সকল শিক্ষা প্রতিষ্ঠানসমূহ খুলে দিতে হবে।

আয়াজ আহমাদ:আসন্ন ২৭ জানুয়ারী চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশন নির্বাচনে চট্টগ্রাম মহানগর ছাত্রলীগের উপ গণ শিক্ষা বিষয়ক সম্পাদক আবদুল আহাদ এর উদ্যোগে বাংলাদেশ আওয়ামী লীগ মনোনীত মেয়র পদপ্রার্থী এম. রেজাউল করিম চৌধুরীকে এলাকাবাসীকে নৌকা মার্কায় ভোট দেওয়ার আহবান জানিয়ে চট্টগ্রাম রেলওয়ে স্টেশন, নিউ মার্কেট, দারুল ফজল মার্কেট, আমতল এলাকায় বিশাল মিছিল ও সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়। উক্ত সমাবেশে প্রধান অতিথি ছিলেন চট্টগ্রাম মহানগর আওয়ামী লীগ অন্যতম সদস্য জামশেদুল আলম চৌধুরী।

প্রধান বক্তা ছিলেন বাংলাদেশ ছাত্রলীগের সাবেক সভাপতি মাঈনউদ্দীন হাসান চৌধুরী। বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন চট্টগ্রাম সরকারী সিটি কলেজের ভিপি মো: আবু তাহের। উক্ত অনুষ্ঠানে আরো উপস্থিত ছিলেন চট্টগ্রাম মহানগর ছাত্রলীগ নেতা আবির মোহাম্মদ তাহসিন, ফারদ্বীন হোসেন আলিফ, মো: আরাফাত হোসেন, মোহাম্মদ হেলাল উদ্দিন, এস আর সায়েম, শোয়াইব শাহরিয়ার, মোহাম্মদ আরিফুল ইসলাম, ইসলামিয়া কলেজ ছাত্রলীগ এর সম্পাদক মো: আনিস,

সিটি কলেজ ছাত্রলীগ নেতা এস.কে. শামীম, সাদ্দাম হোসেন, জিয়া উদ্দিন আরিফ, মো: শাফায়াত উল্লাহ, মো: রিপন, মিনহাজ, আজাদ, ছাত্রলীগ নেতা ফয়সাল, মো: বাপ্পী, সাগর, ওয়াহিদ সহ বাংলাদেশ ছাত্রলীগ চট্টগ্রাম মহানগর ও অন্যান্য সহযোগী সংগঠনের নেতৃবৃন্দ। উক্ত মিছিল পরবর্তী সমাবেশে চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রলীগ নেতা শহীদুল ইসলাম শহীদের সভাপতিত্বে ও চট্টগ্রাম সরকারী সিটি কলেজ ছাত্রলীগ নেতা মো: হারুনুর রশিদ এর সঞ্চালনায় বক্তারা বলেন,

সুন্দর বাস যোগ্য নগরী গড়তে ও উনয়নের ধারা অব্যাহত রাখতে রেজাউল করিম চৌধুরীর কে নৌকা মার্কায় ভোট দিন। হোল্ডিং ট্যাক্স না বাড়িয়ে সবোর্চ্চ উন্নয়ন সেবা পেতে এবং উন্নয়ন সমৃদ্ধি অগ্রগতি নিশ্চিত করতে নৌকায় ভোট দেয়ার আহবান জানান।

সিএমপি চান্দগাঁও থানার অফিসার ইনচার্জ জনাব মোঃ মুস্তাফিজুর রহমান এর নেতৃত্বে চান্দগাঁও থানার স্পেশাল-৩১ নৈশ টিম গোপন সংবাদের ভিত্তিতে ইং ২১/০১/২০২১ তারিখ রাত ০২.১০ ঘটিকার সময় চান্দগাঁও থানাধীন চান্দগাঁও থানার সামনে নিউ চান্দগাঁও রেষ্ট হাউস এর ৪র্থ তলার ৪০৩ নং রুমের ভিতর অভিযান পরিচালনা করে ৩৫০০ পিস ইয়াবা সহ ১। রূপন বড়ুয়া (৩৮) ও ২। রিনা বড়ুয়া (২৯)দ্বয়কে গ্রেফতার করেন।
 গ্রেফতারকৃত ব্যক্তির বিরুদ্ধে চান্দগাঁও থানায় নিয়মিত মামলা রুজু করা হয়েছে।

সিএমপির কোতোয়ালী থানার অফিসার ইনচার্জ জনাব মোহাম্মদ নেজাম উদ্দীন, পিপিএম এর নেতৃত্বে কোতোয়ালী থানা টিম গোপন সংবাদের ভিত্তিতে
২১/০১/২০২১ খ্রিঃ ১৪.১০ ঘটিকায় চট্টগ্রামের কোতোয়ালী থানাধীন সিনেমা প্যালেস সংলগ্ন এলাকায় অভিযান পরিচালনা করে ০১টি দেশীয় তৈরী এলজি ও ০২
রাউন্ড কার্তুজ সহ মোঃ সাজু (২৯)কে গ্রেফতার করেন।
গ্রেফতারকৃত ব্যক্তির বিরুদ্ধে কোতোয়ালী থানায় নিয়মিত মামলা রুজু করা হয়েছে।
গ্রেফতারকৃতঃ ১। মোঃ সাজু (২৯), পিতা-মৃত জসিম উদ্দিন @ জসীম উদ্দিন, মাতা-রেহেনা বেগম, সাং-নাজির পাড়া, আব্দুল গণি মিস্ত্রির বাড়ী,থানা-মীরসরাই, জেলা-চট্টগ্রাম বর্তমানে-ফকিরপাড়া, কে সি দে রোড, সিভিল সার্জন এর পাহাড় এবং স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের মহাপরিচালকের অফিস সংলগ্ন পরীর পাহাড়, সিনেমা প্যালেস, থানা-কোতোয়ালী, জেলা-চট্টগ্রাম।
ধৃত মোঃ সাজু (২৯)এর বিরুদ্ধে নিম্নে বর্ণিত মামলা সমূহ রুজু আছে ১। সিএমপি এর কোতয়ালী থানার এফ আই আর নং-৬০, তারিখ- ২৪ ফেব্রু, ২০১৭ ধারা- ১৯(ভ) ১৮৭৮ সালের অস্ত্র আইন ২। সিএমপি এর কোতয়ালী থানার এফ আই আর নং-৫৯, তারিখ-২৪ ফেব্রু, ২০১৭;
ধারা-৩৯৯/৪০২ পেনাল কোড-১৮৬০
৩। সিএমপি এর কোতয়ালী থানার এফ আই আর নং-৬০, তারিখ-২৩ জুন, ২০১৬,ধারা-১৮৭৮ সালের অস্ত্র আইন এর ১৯ (ব) ৪। সিএমপি এর কোতয়ালী থানার এফ আই আর নং-৫৯, তারিখ- ২৩ জুন, ২০১৬;
ধারা-৩৯৯/৪০২ পেনাল কোড-১৮৬০
৫। সিএমপি এর কোতয়ালী থানার এফ আই আর নং-১৮, তারিখ-১০ নভে, ২০১৪;ধারা-১৯(ভ) ১৮৭৮ সালের অস্ত্র আইন ৬। সিএমপি এর কোতয়ালী থানার এফ আই আর নং-৫৫, তারিখ-২৪ জুন, ২০১৩; ধারা-
৪৭/১৪৮/১৪৯/৩০২/৩৪ পেনাল কোড-১৮৬০

0 0

শাহজাহান চৌধুরী শাহীন।।এক সন্তানের মরদেহ কক্সবাজার জেলা সদর হাসপাতাল মর্গে। অন্য সন্তান মৃত্যুর পদযাত্রী হয়ে চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে। একদিকে পুত্র শোকে শোকাতুর, অন্যদিকে লাশ নিয়ে পুলিশের টানাটানিতে অসহায় হয়ে পড়েছে পরিবারটি।
২১ জানুয়ারী সকাল ৮টায় কক্সবাজার-চট্টগ্রাম মহাসড়কের ঈদগাঁও ইসলামাবাদের খোদাই বাড়ী রাশেদ ফিলিং স্টেশনের পাশে প্রাইভেট কার ধাক্কায় মোটরসাইকেল আরোহী সাইফুল ইসলাম ঘটনাস্থলে প্রাণ হারান ও অপর ভাই গুরুতর আহত হন।
নিহত সাইফুল ও আহত জাহেদুল কক্সবাজারের ঈদগাঁও ইসলামপুর ইউনিয়নের জুমনগর এলাকার মো.ইলিয়াছের ছেলে।
নিহত সন্তানের মরদেহ রয়েছে কক্সবাজার জেলা সদর হাসপাতাল মর্গে।
পিতা মো.ইলিয়াছ চাচ্ছেন এডিএম এর অনুমতি নিয়ে বিনা ময়না তদন্তে লাশ দাফন করতে।
আর কক্সবাজার সদর মডেল থানা পুলিশের এসআই আবুল মনছুর চাচ্ছেন ময়না তদন্ত করে লাশ হস্তান্তর করতে।
তাহলে কি অতিরিক্ত জেলা ম্যাজিষ্ট্রেট এর নির্দেশ আর জন্মদাতা পিতার আকুতি কি মুল্যহীন হয়ে পড়েছে !
ইসলামপুর জুমনগর ৫নং ওয়ার্ড সদস্য আবদু শুক্কুর জানান,
সাইফুল ইসলাম (২২), জাহেদুল ইসলাম (২০) বৃহস্পতিবার সকাল ৮ টায় বাড়ি থেকে মোটরসাইকেল যোগে দুইভাই কর্মস্থল খরুলিয়া বাজারে আসার পথে মহাসড়কের ঈদগাঁও থানাধীন খোদাই বাড়ী রাশেদ ফিলিং স্টেশনের পাশে চকরিয়া অভিমুখী একটি প্রাইভেট কার ধাক্কা দেয়। এতে মোটরসাইকেল আরোহী দুই ভাই সাইফুল ইসলাম ও জাহেদুল ইসলাম রাস্তা থেকে ছিটকে পড়ে। এতে ঘটনাস্থলে প্রাণ হারান সাইফুল ইসলাম। এসময়
আহত জাহেদুল ইসলামকে উদ্ধার করে প্রথমে কক্সবাজার জেলা সদর হাসপাতালে নিয়ে আসা হয়। সেখানে তার অবস্থার গুরুতর হলে তাকে চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে (চমেক হাসপাতাল) প্রেরণ করা হয়।
তিনি আরও জানান, প্রাইভেট কারটি ডুলাহাজারা হাইওয়ে পুলিশ আটক করেছে।
নিহত সাইফুলের বাবা মো. ইলিয়াস জানান, এক ছেলের লাশ হাসপাতাল মর্গে এবং আরেক ছেলে অর্ধমৃত অবস্থায় চমেক হাসপাতালে মৃত্যুর সাথে লড়ছে।
তিনি বলেন, আমার ছেলের মরদেহ বিনা ময়না তদন্তে দাফনের জন্য কক্সবাজার অতিরিক্ত জেলাঅতিরিক্ত জেলা ম্যাজিষ্ট্রেট (এডিএম) এর কাছে আবেদন করেছি। এডিএম মহোদয় বিধিমোতাবেক ব্যবস্থা নিতে ওসি কক্সবাজার সদর মডেল থানাকে নির্দেশ দেন। কিন্ত লাশের সুরতহাল তৈরি কারক সদর মডেল থানার এসআই আবুল মনছুর মির্জা চাইছেন লাশের ময়না তদন্ত করতে। এডিএম এর অনুমতি নিয়ে বিনা ময়না তদন্তে ছেলের লাশ দাফনের আবেদনটি রহস্যজনক কারণে পুলিশ শুনছেন না। কক্সবাজার সদর মডেল থানা পুলিশের এসআই আবুল মনছুর ময়না তদন্ত করে লাশ হস্তান্তর করতে চান।
তিনি বলেন,
তাহলে কি অতিরিক্ত জেলা ম্যাজিষ্ট্রেট এর নির্দেশ আর আমি জন্মদাতা পিতা হিসাবে আমার আকুতির কি কোন মুল্য নেই।
কক্সবাজার সদর মডেল থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মনিরুল গীয়াস এর বক্তব্য নেওয়ার জন্য সরকারী মোবাইল নাম্বারে বার বার রিং করা হলেও তিনি রিসিভ করেননি। তবে মোবাইলে ওসি (তদন্ত) বিপুল চন্দ্র ঘোষ এর সাথে যোগাযোগ করা হলে, তিনি এডিএম লিখে দিলেও আমরা আমাদের কর্তব্য পালন করব এবং বিধি মোতাবেক লাশের ময়না তদন্ত হবে এবং আইনী প্রক্রিয়ায় লাশ পরিবারের নিকট হস্তান্তর করা হবে।

0 0

মােঃ আবু সুফিয়ান মাহবুব (লিমন) গণপূর্ত অধিদপ্তরের নির্বাহী প্রকৌশলী (চলতি দায়িত্ব) হিসেবে পদোন্নতি পেয়েছেন ৷ তিনি ইঞ্জিনিয়ার্স ইনস্টিটিউশন বাংলাদেশের ইলেকট্রিক্যাল ইঞ্জিনিয়ারিং ডিভিশনের সেক্রেটারী ৷ তাঁর লাইফ মেম্বার নং-এম/২৬৬০৭ ৷
তিনি ১৯৮৫ সালে খুলনায় জন্ম গ্রহন করেন। তাঁর পিতার নাম মোঃ অাব্দুস শুকুর এবং মাতার নাম মিসেস তাহেরা খাতুন৷ বর্তমানে পারিবারিক জীবনে স্ত্রীসহ এক পুত্র ও এক কন্যা সন্তান নিয়ে তিনি ঢাকায় বসবাস করছেন।
তিনি খুলনা জিলা স্কুল থেকে ২০০১ সালে এস.এস.সি ও ঢাকার নটরডেম কলেজ থেকে ২০০৩ সালে এইচ.এস.সি এবং পরবর্তীতে খুলনা প্রকৌশল ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় (কুয়েট) থেকে ২০০৮ সালে ইলেকট্রিক্যাল এন্ড ইলেকট্রোনিক ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগে বি.এস.সি ইঞ্জিনিয়রিং পাশ করেন।
তিনি ৩১ তম বিসিএস পরীক্ষায় উত্তীর্ন হয়ে ২০১৩ সালে বিসিএস (গণপূর্ত) ক্যাডারে সরকারী চাকুরীতে যােগদান করেন। কর্মক্ষেত্রে তিনি সহকারী প্রকৌশলী (ই/এম) হিসেবে গণভবনে কর্মরত ছিলেন ৷ এরপর তিনি উপ-বিভাগীয় প্রকৌশলী (ই/এম) হিসেবে বরিশাল গণপূর্ত ই/এম উপ-বিভাগ ও গণপূর্ত ই/এম
কারখানা উপ-বিভাগ-১, শেরেবাংলা নগর (সংসদ ভবন কম্পাউন্ড) ঢাকায় কর্মরত ছিলেন। পদোন্নতির পর বর্তমানে তিনি গণপূর্ত ই/এম পিএন্ডডি বিভাগ-১, ঢাকায় নির্বাহী প্রকৌশলী হিসেবে যোগদান করেছেন৷ তিনি বঙ্গবন্ধুর স্বপ্নের সোনার বাংলা বিনির্মানে সরকারী দায়িত্ব পালনে সকলের দোয়া কামনা করেছেন।

0 0

আয়াজ আহমাদ,বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মাহবুব উল আলম হানিফ বলেছেন, চট্টগ্রাম হচ্ছে দেশের দ্বিতীয় রাজধানী। বন্দর ও আন্তর্জাতিরক যোগাযোগের কারণে অনেকক্ষেত্রে চট্টগ্রাম ঢাকার চেয়েও বেশি গুরুত্বপূর্ণ। গতকাল বৃহস্পতিবার প্রেস ক্লাবে সাংবাদিকদের সাথে মতবিনিময়কালে তিনি উক্ত অভিমত ব্যক্ত করেন।

চট্টগ্রাম প্রেস ক্লাবের পিএইচপি ভিআইপি লাউঞ্জে অনুষ্ঠিত মতবিনিময় অনুষ্ঠানে প্রেস ক্লাব সভাপতি আলহাজ্ব আলী আব্বাস সভাপতিত্বে স্বাগত বক্তব্য রাখেন সাধারণ সম্পাদক ফরিদ উদ্দিন চৌধুরী। যুগ্ম সম্পাদক নজরুল ইসলামের সঞ্চালনায় অতিথির বক্তব্য রাখেন বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের দপ্তর সম্পাদক ও মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর বিশেষ সহকারী ব্যারিস্টার বিপ্লব বড়–য়া, সাইমুম সরওয়ার কমল এমপি, আশেক উল্লাহ রফিক এমপি এবং চট্টগ্রাম প্রেস ক্লাবের কার্যকরী সদস্য মোয়াজ্জেমুল হক।

সাংবাদিকদের এক প্রশ্নের জবাবে মাহবুবুল আলম হানিফ বলেন, এখন বিএনপির রাজনৈতিক দর্শন হচ্ছে সরকারের বিরুদ্ধে অভিযোগ করা। করোনায় উন্নত রাষ্ট্রসহ সারাবিশ্ব যখন বিপন্ন তখন মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর নেতৃত্বে বাংলাদেশ এই মহামারী অনেকটা সহনীয় পর্যায়ে রাখতে সফল হয়েছে। এক সপ্তাহ আগেও বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর বলেছিলেন, দেশে করোনা ভ্যাকসিন আসবে না, সরকার মিথ্যার রাজনীতি করছে। কিন্তু আজকে করোনার ভ্যাকসিন দেশে চলে এসেছে।

চসিক নির্বাচন সম্পর্কে তিনি বলেন, কাউন্সিলরদের দল থেকে মনোনয়ন দেয়া হয় না, সমর্থন দেয়া হয় মাত্র। বিদ্রোহী প্রার্থীদের আমরা দলের পক্ষ থেকে প্রার্থীতা প্রত্যাহার করতে বলেছি। অনেকে তা করেছে। এখন যারা দলের সিদ্ধান্ত অমান্য করেছে তাদের বিরুদ্ধে কেন্দ্র থেকে দ্রæত শাস্তিমূলক ব্যবস্থা নেয়া হবে।

চট্টগ্রাম প্রেস ক্লাবের সদস্যদের জন্য তার দরজা সবসময় খোলা উল্লেখ করে হানিফ বলেন, প্রেস ক্লাবের সাংবাদিকদের যেকোনো প্রয়োজনে তিনি সবসময় এগিয়ে আসবেন।

আওয়ামী লীগের দপ্তর সম্পাদক ও মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর বিশেষ সহকারী ব্যরিস্টার বিপ্লব বড়–য়া বলেছেন, মাননীয় প্রধানমন্ত্রী দেশরতœ শেখ হাসিনা সমগ্রদেশের সাথে সাথে চট্টগ্রামেরও যে উন্নয়ন কর্মকাÐ করেছেন, অতীতে কেউ তা ভাবতেও পারেনি। চট্টগ্রাম হচ্ছে প্রধানমন্ত্রীর ব্যক্তিগত আবেগের স্থান। কর্ণফুলী টানেল, ফ্লাইওভারসহ চট্টগ্রামের উন্নয়নের মহাপরিকল্পনা এরই ফসল। ব্যরিস্টার বিপ্লব বড়–য়া চট্টগ্রাম প্রেস ক্লাবের সার্বিক উন্নয়ন কর্মকাÐে তাঁর প্রচেষ্টা অব্যাহত রাখার ঘোষণা দেন।

 

অনুষ্ঠানে চট্টগ্রাম প্রেস ক্লাবের সহসভাপতি স ম ইব্রাহীম, অর্থ সম্পাদক রাশেদ মাহমুদ, সাংস্কৃতিক সম্পাদক নাসির উদ্দিন হায়দার, সমাজসেবা ও আপ্যায়ন সম্পাদক মো. আইয়ুব আলী, প্রচার ও প্রকাশনা সম্পাদক আলীউর রহমান, কার্যকরী সদস্য শহীদুল্লাহ শাহরিয়ার, দেবদুলাল ভৌমিক, মহসিন চৌধুরীসহ বিপুল সংখ্যক সাংবাদিক উপস্থিত ছিলেন।

সিএমপির কোতোয়ালী থানার অফিসার ইনচার্জ জনাব মোহাম্মদ নেজাম উদ্দীন, পিপিএম এর নেতৃত্বে কোতোয়ালী থানা টিম গোপন সংবাদের ভিত্তিতে ২০/০১/২০২১ তারিখ ২০.৪৫ ঘটিকায় চট্টগ্রামের কোতোয়ালী থানাধীন নতুন রেলষ্টেশন সংলগ্ন এলাকায় অভিযান পরিচালনা করে ৪০০০পিস ইয়াবা সহ মোঃ ইসমাইল (২৬)কে গ্রেফতার করেন।
গ্রেফতারকৃতঃ ১। ১। মোঃ ইসমাইল (২৬), পিতা-মৃত জাফর ইকবাল, মাতা-মরিয়ম বেগম, সাং-মুরাদনগর, পশ্চিম পাড়া, ৭নং ওয়ার্ড, তারেক কমিশনারের বাড়ি, থানা-রাঙ্গুনিয়া, জেলা-চট্টগ্রাম।
ধৃত মোঃ ইসমাইল (২৬) এর বিরুদ্ধে চট্টগ্রাম এর রাঙ্গুনিয়া থানার মামলা নং-০৭, তারিখ-১১ জুন, ২০১৩ ধারা-১৪৩/৪৪৮/৩২৩/৩২৪/৩৭৯/৫০৬ পেনাল কোড-১৮৬০ রুজু আছে।
গ্রেফতারকৃত ব্যক্তির বিরুদ্ধে কোতোয়ালী থানায় নিয়মিত মামলা রুজু করা হয়েছে।

ইং ২০/০১/২০২১ইং তারিখ ২০.৩০ ঘটিকার সময় জনাবজনাব প্রিটন সরকার, অফিসার ইনচার্জ, বায়েজিদ বোস্তামী থানা, সিএমপি, চট্টগ্রাম এর নেতৃত্বেবায়েজিদ বোস্তামী থানা টিম আসন্ন চট্টগ্রামসিটি কর্পোরেশন নিবাচন ২০২১ ইং সামনে রেখেআইন শৃঙ্খলা নিয়ন্ত্রনে নিয়মিত অভিযান পরিচালনা করারসময় গোপনের সংবাদের ভিত্তিতে বায়েজিদ বোস্তামীথানাধীন অক্সিজেন বাজারস্থ হোটেল জামান এর পূর্বে মসজিদ গলি, জাহাঙ্গীর ষ্টোরের সামনে হতে মোঃ ফরহাদ উদ্দিন প্রঃ মজনু (২৯) কে গ্রেফতার করেন। এসময় তারহেফাজত হতে ০১টি রিভালবার, ০২ (দুই) রাউন্ড গুলি ও ০১টি টিপ ছোরা উদ্ধার করা হয়।

গ্রেফতারকৃত ব্যক্তির বিরুদ্ধে বায়েজিদ বোস্তামীথানায় নিয়মিত মামলা রুজু করা হয়েছে।

 

গ্রেফতারকৃতঃ ১। মোঃ ফরহাদ উদ্দিন প্রঃ মজনু (২৯), পিতা- মৃত কামাল উদ্দিন, মাতা- জোহরা বেগম, প‚র্ব শহিদনগর, নুরু হাজীর বাড়ি, থানা- বায়েজিদ বোস্তামী, জেলা- চট্টগ্রাম।

ধৃত মোঃ ফরহাদ উদ্দিন প্রঃ মজনু (২৯) এর নামেনিমক্ত মামলা গুলো বিজ্ঞ আদালতে বিচারাধীনরয়েছে

 

১। বায়েজিদ বোস্তামি থানার এফ আই আর নং-৩/৩৩৭, তারিখ- ০১ সেপ্টে, ২০১৮; ধারা- ৩৯৯/৪০২ পেনাল কোড-১৮৬০;

২। বায়েজিদ বোস্তামি থানার এফ আই আর নং-২/৩৩৬, তারিখ- ০১ সেপ্টে, ২০১৮; ধারা- ১৯-ধ/১৯(ভ) ১৮৭৮ সালের অস্ত্র আইন

৩। বায়েজিদ বোস্তামি থানার এফ আই আর নং-৩১/৩০৫, তারিখ- ১৯ জুন, ২০১৭; ধারা- ১৯(১) এর ৯(খ) ১৯৯০ সালেরমাদক দ্রব্য নিয়ন্ত্রণ আইন ;

৪। বায়েজিদ বোস্তামি থানার এফ আই আর নং-১৯, তারিখ- ২১ মার্চ, ২০১৫; ধারা- ৩০২/৩৪ পেনাল কোড-১৮৬০;

৫। রাউজান থানার এফ আই আর নং-৬, তারিখ- ০৬ অক্টে, ২০০৯; ধারা- ৩৯৪ পেনাল কোড-১৮৬০