Home আইন ও আদালত বাকলিয়া থেকে ৪২ লক্ষ ৫০ হাজার টাকার ৮,৪৯০ পিস ইয়াবা উদ্ধারসহ ০২...

বাকলিয়া থেকে ৪২ লক্ষ ৫০ হাজার টাকার ৮,৪৯০ পিস ইয়াবা উদ্ধারসহ ০২ জন কে আটক করেছে র‍্যাব-৭

বাকলিয়া থেকে ৪২ লক্ষ ৫০ হাজার টাকার ৮,৪৯০ পিস ইয়াবা উদ্ধারসহ ০২ জন কে আটক করেছে র‍্যাব-৭

আয়াজ সানি সিটিজি ট্রিবিউন চট্টগ্রাম

চট্টগ্রাম মহানগরীর বাকলিয়া বাকলিয়া থানাধীন মীর ফিলিং স্টেশন এলাকায় অভিযান চালিয়ে আনুমানিক ৪২ লক্ষ ৫০ হাজার টাকা মূল্যের ৮,৪৯০ পিস ইয়াবা ট্যাবলেট উদ্ধারসহ ০২ জন মাদক ব্যবসায়ীকে আটক করেছে র‍্যাব-৭,চট্টগ্রাম।

র‍্যাব-৭,চট্টগ্রাম গোপন সংবাদের মাধ্যমে জানতে পারে যে, কতিপয় মাদক ব্যবসায়ী রোগী সেজে একটি এ্যাম্বুলেন্স যোগে বিপুল পরিমান মাদকদ্রব্য নিয়ে কক্সবাজার হতে চট্টগ্রামের দিকে আসছে। উক্ত সংবাদের ভিত্তিতে গত ১২ জুলাই ২০২১ তারিখ ১১;৫০ র‍্যাব-৭, চট্টগ্রাম এর একটি আভিযানিক দল চট্টগ্রাম মহানগরীর বাকলিয়া থানাধীন মীর ফিলিং স্টেশন এলাকায় রাজবাড়ি কনভেশন সেন্টারের সামনে পাকা রাস্তার উপর একটি বিশেষ চেকপোস্ট স্থাপন করে গাড়ি তল্লাশি শুরু করে।

এসময় র‍্যাবের চেকপোস্টের দিকে আসা একটি এ্যাম্বুলেন্সকে থামানোর সংকেত দিলে এ্যাম্বুলেন্সটি র‍্যাবের চেকপোস্টের সামনে থামিয়ে দুইজন ব্যক্তি সুকৌশলে পাালিয়ে যাওয়ার চেষ্টা করলে র‌্যাব সদস্যরা ধাওয়া করে আসামি

চালক ১। আব্দুল কাদের (৪০), পিতা- মৃত আবু তাহের, সাং- পেকুয়ার চর, থানা- পেকুয়া, জেলা- কক্সবাজার এবং ২। রমিজ আহম্মদ (৫৯), পিতা- মৃত নজির আহাম্মদ, সাং- উত্তর ধুরুম কুতুব দিয়া, থানা- কুতুবদিয়া, জেলা- কক্সবাজারদের আটক করে।

পরবর্তীতে উপস্থিত সাক্ষীদের সম্মুখে আটককৃত আসামিদের ব্যাপক জিজ্ঞাসাবাদে তাদের দেখানো ও শনাক্ত মতে নিজ দখলে থাকা শপিং ব্যাগের ভিতর হতে ৮,৪৯০ পিস ইয়াবা ট্যাবলেট উদ্ধারসহ আসামীদের গ্রেফতার করা হয়।

এসময় এ্যাম্বুলেন্সটি সুকৌশালে পালিয়ে যেতে সক্ষম হয়। গ্রেফতারকৃত আসামীদের জিজ্ঞাসাবাদে আরো জানা যায়, তারা দীর্ঘদিন যাবত কক্সবাজার জেলার সীমান্তবর্তী এলাকা হতে মাদকদ্রব্য সংগ্রহ করে পরবর্তীতে বিভিন্ন অভিনব কৌশলে চট্টগ্রামসহ দেশের অন্যান্য অঞ্চলের মাদক ব্যবসায়ীর নিকট বিক্রয় করে আসছে। উদ্ধারকৃত মাদকদ্রব্যের আনুমানিক মূল্য ৪২ লক্ষ ৪৫ হাজার টাকা।

গ্রেফতারকৃত আসামী এবং উদ্ধারকৃত মাদকদ্রব্য সংক্রান্তে পরবর্তী আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণের নিমিত্তে চট্টগ্রাম মহানগরীর বাকলিয়া থানায় হস্তান্তর করা হয়েছে।

NO COMMENTS

Leave a Reply