Home আইন ও আদালত ৬ কোটি ১১ লক্ষ টাকা মূল্যের ১,২২,১৪০ পিস ইয়াবা ট্যাবলেট উদ্ধারসহ ০১...

৬ কোটি ১১ লক্ষ টাকা মূল্যের ১,২২,১৪০ পিস ইয়াবা ট্যাবলেট উদ্ধারসহ ০১ জন কে আটক করেছে -র‍্যাব-৭ ; চট্টগ্রাম

আয়াজ আহমাদ:কক্সবাজার জেলার টেকনাফ থানাধীন উত্তর লম্বরী এলাকায় অভিযান চালিয়ে আনুমানিক ০৬ কোটি ১১ লক্ষ টাকা মূল্যের ১,২২,১৪০ পিস ইয়াবা ট্যাবলেট উদ্ধারসহ ০১ জন মাদক ব্যবসায়ীকে আটক করেছে  -র‍্যাব-৭ ; চট্টগ্রাম

র‍্যাব-প্রতিষ্ঠালগ্ন থেকে সমাজের বিভিন্ন অপরাধ এর উৎস উঘাটন , অপরাধীদের গ্রেফতারসহ আইন শৃঙ্খলার সামগ্রিক উন্নয়নে নিরলসভাবে কাজ করে যাচ্ছে ।র‍্যাব-, চট্টগ্রাম অস্ত্রধারী সন্ত্রাসী , ডাকাত , ধর্ষক , চাঁদাবাজ , সন্ত্রাসী , খুনি , বিপুল পরিমাণ অবৈধ অস্ত্র ও গােলাবারুদ উদ্ধার , মাদক উদ্ধার , ছিনতাইকারী , অপহরণকারী ও প্রতারকদের গ্রেফতারের ক্ষেত্রে জিরাে টলারেন্স নীতি অবলম্বন করায় সাধারণ জনগনের মনে আস্থা অর্জন করতে সক্ষম হয়েছে ।

র‍্যাব-৭ গােপন সংবাদের মাধ্যমে জানতে পারে যে , কক্সবাজার জেলার টেকনাফ থানাধীন টেকনাফ সদর ইউনিয়ন এর উত্তর লম্বরী সাকিনস্থ হযরত ফাতেমা ( রাঃ ) আদর্শ নুরানী মাদ্রাসার পশ্চিমে আহম্মেদ কবির এর মুরগির খামারের দুচলা টিনের ঘর এর ভিতর কতিপয় মাদক ব্যবসায়ী মাদকদ্রব্য ইয়াবা ট্যাবলেট বিক্রয়ের জন্য অবস্থান করছে ।

উক্ত সংবাদের ভিত্তিতে গত ২৫ জানুয়ারি ২০২১ ইং তারিখ ০০৪৫ ঘটিকায় র‍্যাব- , চট্টগ্রাম , এর একটি চৌকষ আভিযানিক দল বর্ণিত স্থানে অভিযান পরিচালনা করলে র্যাবের উপস্থিতি টের পেয়ে দৌড়ে পালানাের চেষ্টা করলে র্যাব সদস্যরা ধাওয়া করে আসামি আহম্মেদ কবির ( ৩০ ) , পিতা- মােঃ হাসন , সাং- উত্তর লম্বরী , থানা- টেকনাফ , জেলা কক্সবাজারকে আটক করে ।

পরবর্তীতে উপস্থিত সাক্ষীদের সম্মুখে আটককৃত আসামিকে ব্যাপক জিজ্ঞাসাবাদে তার দেখানাে ও সনাক্তমতে নিজ দখলে থাকা ঘরের ভিতর তল্লাশি করে একটি প্লাস্টিকের ড্রামের ভিতরে বিশেষ কায়দায় রক্ষিত অবস্থায় ১,২২,১৪০ পিস ইয়াবা ট্যাবলেট উদ্ধারসহ আসামিকে গ্রেফতার করা হয় ।

আটককৃত আসামিকে জিজ্ঞাসাবাদে আরাে জানা যায় , সে দীর্ঘদিন যাবত কক্সবাজার জেলার সীমান্তবর্তী এলাকা হতে মাদকদ্রব্য সংগ্রহ করে পরবর্তী কক্সবাজারসহ দেশের বিভিন্ন অঞ্চলে মাদক ব্যবসায়ীদের নিকট বিক্রয় করে আসছে । উদ্ধারকৃত মাদকদ্রব্যের আনুমানিক মূল্য ০৬ কোটি ১১ লক্ষ টাকা ।

গ্রেফতারকৃত আসামি ও উদ্ধারকৃত মাদকদ্রব্য সংক্রান্তে পরবর্তী আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণের নিমিত্তে কক্সবাজার জেলার টেকনাফ মডেল থানায় হস্তান্তর করা হয়েছে ।

NO COMMENTS

Leave a Reply