Home আইন ও আদালত কাউন্টার টেরোরিজম বিভাগ এর সাইবার ক্রাইম টিমের অভিযান, হবিগঞ্জ থেকে হ্যাকার দম্পতি...

কাউন্টার টেরোরিজম বিভাগ এর সাইবার ক্রাইম টিমের অভিযান, হবিগঞ্জ থেকে হ্যাকার দম্পতি গ্রেফতার।

ঘটনার বিবরণঃ গত ২৬/১১/২০২০ তারিখ ভিকটিমের ছোট বোনের ফেইসবুক আইডি হ্যাক করা হইলে উক্ত হ্যাক হওয়া আইডি হইতে অজ্ঞাতনামা হ্যাকার ভিকটিমের ফেসবুক মেসেঞ্জারে মোটা অঙ্কের টাকা দাবী করিয়া ম্যাসেজ দেয়। পরবর্তীতে ২৭/১১/২০২০ইং তারিখ ভিকটিমের বোনের হ্যাক হওয়া ফেইসবুক আইডি রিকভার করার জন্য ভিকটিম বিভিন্ন সাইট খুঁজে আইডি রিকভার করে এমন একটি পেইজের সন্ধান পান।

পরবর্তীতে অজ্ঞাতনামা ফেইসবুক পেইজ ব্যবহারকারী নিজেকে তানজিলা আক্তার তুলি বলিয়া পরিচয় দিয়ে ভিকটিমের মেসেঞ্জারে কল করিয়া ভিকটিমের বোনের হ্যাক হওয়া আইডি রিকভার করার জন্য টাকা দাবী করিয়া একটি বিকাশ নাম্বার দিলে ভিকটিম উক্ত বিকাশ নাম্বারে এ দাবীকৃত টাকা বিকাশ করে।

গত ২৮/১১/২০২০ইং তারিখ অনুমান রাত ০৩:০০ ঘটিকার সময় ঐ মহিলা ফেইসবুক মেসেঞ্জার হতে ভিকটিমের মেসেঞ্জারে কল করে বলে যে, ফেইসবুক ০৫ মিনিট সময়ে দিয়েছে রিকাভারী করার জন্য এবং যার জন্য একটি জয়েন্ট একাউন্ট লাগবে বলিয়া একটি লিংক পাঠিয়ে উক্ত লিংকে ভিকটিমের ব্যবহৃত ফেইসবুক আইডি ও পাসওয়ার্ড ব্যবহার করে লগইন করার জন্য বলে।

ভিকটিম উক্ত লিংকে ফেইসবুক আইডি ও পাসওয়ার্ড ইনপুট করা মাত্রই ভিকটিমের ব্যবহৃত ফেইসবুক আইডিটি লগ আউট হয়ে তাহার একাউন্টটি হ্যাক হয়ে যায়। পরবর্তীতে ভিকটিম অন্য একটি ফেইসবুক আইডি হইতে তানজিলা আক্তার তুলিকে মেসেঞ্জারে কল করিলে অজ্ঞাতনামা একজন ব্যক্তি জানায় ভিকটিমের আইডি সে হ্যাক করিয়াছে এবং ভিকটিমকে উক্ত হ্যাকারের সহিত খারাপভাবে মেসেঞ্জারে ভিডিও কল করার জন্য বলে।

হ্যাকারের প্রস্তাবে ভিকটিম রাজি না হলে সে ভিকটিমকে মেসেঞ্জারে অকথ্য ভাষায় গালমন্দ করতঃ বিভিন্ন ভয়ভীতি প্রদান করা সহ ভিকটিমের হ্যাক হওয়া ফেইসবুক হতে ভিকটিমের স্বামী ও তার ব্যক্তিগত ছবি সংগ্রহ করিয়া তা ইন্টারনেটে ভাইরাল করিয়া দিবে এবং ভিকটিমের নামে পর্ণ ওয়েব সাইট খুলিবে বলিয়া হুমকি প্রদান করে।

হ্যাকার ভিকটিম ও তাহার স্বামীর কাছ থেকে মোটা অঙ্কের টাকা দাবী করিলে ভিকটিম পর্যাপ্ত পরিমাণ টাকা দিতে অপারগতা প্রকাশ করিলে হ্যাকার ভিকটিমের হ্যাক করা আইডি থেকে ভিকটিমের বিভিন্ন ফ্রেন্ড এবং নিকট আত্মীয় স্বজনের নিকট ভিকটিমের ব্যক্তিগত ছবি ও ভিডিও এডিট করে কুরুচিপূর্নভাবে প্রেরণ করে।

ভিকটিম উল্লেখিত বিষয়ে ভিকটিম সিএমপি’র হালিশহর থানার মামলা নং-০৪, তারিখ-০৩/১২/২০২০ইং, ধারা-ডিজিটাল নিরাপত্তা আইন-২০১৮ এর ২৪(১)(ক)/ ২৫(১)(ক)/৩৪(১) দায়ের করেন।

পরবর্তীতে কাউন্টার টেরোরিজম ইউনিট এর সাইবার ক্রাইমের ০১ (এক) টিম তথ্য প্রযুক্তি ব্যবহার করিয়া উক্ত হ্যাকারকে সনাক্ত পূর্বক হবিগঞ্জ জেলার হবিগঞ্জ সদর থানাধীন মাহমুদাবাদ এলাকা হইতে ০৪/১২/২০২০ইং তারিখ সকাল ০৯.৪৫ ঘটিকায় হ্যাকার ১। আসাদুজ্জামান পলাশ (২১) এবং সহযোগী তার স্ত্রী ১। সাদিয়া সরকার (২১) কে গ্রেফতার করেন।

উক্ত অভিযানে কাউন্টার টেরিজম ইউনিট এর সাইবার ক্রাইম টিমকে সহায়তা করেন হবিগঞ্জ জেলার গোয়েন্দা বিভাগ। উক্ত হ্যাকারকে প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে তারা দীর্ঘদিন বিভিন্ন ফেইসবুক আইডি রিকভার করে দেওয়ার নামে, ফেইজবুক পেইজ বুস্ট,ফেইসবুক আইডি ভেরিফাইড এবং পেইজের ফলোয়ার বাড়ানোর চটকদার বিজ্ঞাপনের মাধ্যমে কৌশলে আইডি হ্যাক করিয়া বিভিন্ন ফেইসবুক আইডি ব্যবহারকারীর ব্যক্তিগত তথ্য ছবি,

ভিডিও সংরক্ষন করিয়া বিভিন্ন সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ও ওয়েবসাইট ছড়িয়ে দেওয়ার হুমকি প্রদান ও প্রতারনাপূর্বক বিকাশের মাধ্যমের টাকা হাতাইয়া নিয়ে আসিতেছিল মর্মে স্বীকার করে। আসামীদের হেফাজত হইতে অত্র ঘটনায় ব্যাহৃত দুইটি এ্যান্ড্রয়েড মোবাইল সেট, ৬টি ভূয়া রেজিষ্টার্ড সীম কার্ড যা বিকাশে টাকা হাতিয়ে নেওয়ার কাজে ব্যাবহৃত হয়,

একটি মেমোরী কার্ড উদ্ধার করা হয়। উদ্ধারকৃত মোবাইল ডিভাইস প্রাথমিকভাবে পর্যালোচনায় আসামীদের মোবাইলের ফেইসবুক অ্যাপসে বিভিন্ন নামের লোকজনের অন্তত অর্ধশত ফেইসবুক আইডির লগইন এবং হ্যাকিং সংক্রান্তে তথ্য পাওয়া যায়।

NO COMMENTS

Leave a Reply