Home চট্টগ্রাম প্রশাসক সুজনের উদ্যোগে আরেক দফা গ্র্যাচুইটির টাকা পেলেন অবসরপ্রাপ্ত কর্মকর্তা-কর্মচারীরা

প্রশাসক সুজনের উদ্যোগে আরেক দফা গ্র্যাচুইটির টাকা পেলেন অবসরপ্রাপ্ত কর্মকর্তা-কর্মচারীরা

0 0

চট্টগ্রাম-৩ নভেম্বর ২০২০ইং :চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশনের প্রশাসক আলহাজ্ব মোহাম্মদ খোরশেদ আলম সুজনের ঐকান্তিক প্রচেষ্টায় আরেক দফা কর্পোরেশনের অবসরপ্রাপ্ত কর্মকর্তা-কর্মচারীদের গ্র্যাচুইটির টাকা প্রদান করলো চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশন।

আজ মঙ্গলবার (৩.১১.২০) সকালে নগরীর বাটালি হিল টাইগারপাসস্থ কর্পোরেশনের সম্মেলন কক্ষে চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশনের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা কাজী মুহাম্মদ মোজাম্মেল হক প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থেকে মোট ৩৫ জন কর্মকর্তা-কর্মচারীর প্রত্যেকের হাতে গ্র্যাচুইটির এই চেক তুলে দেন। দ্বিতীয় দফায় চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশন এবার ৩৫ জন কর্মকর্তা-কর্মচারীকে তাদের প্রাপ্য বকেয়া গ্র্যাচুইটির টাকা বাবদে মোট ১ কোটি ৪২ লাখ টাকা দিলো ।


এই উপলক্ষে আয়োজিত এক সংক্ষিপ্ত অনুষ্ঠানে অন্যান্যের মধ্যে বক্তব্য রাখেন চসিকের সাবেক  প্রকৌশলী এয়াকুব নবী (অবসরপ্রাপ্ত), সাবেক  সাস্থ্য কর্মকর্তা ও চিকিৎসক ডা. রশিদ আহম্মদ (অবসরপ্রাপ্ত), কৃষ্ণ কুমারী স্কুলের সাবেক প্রধান শিক্ষক মর্জিনা আক্তার (অবসরপ্রাপ্ত), চসিক সিবিএ সভাপতি ফরিদ আহম্মদ, সাধারণ সম্পাদক মুজিবুর রহমান ও হিসাব রক্ষণ কর্মকর্তা মাসুদুল ইসলাম ।

প্রধান অতিথির বক্তব্যে চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশনের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা বলেন, কর্পোরেশনের প্রশাসক মহোদয় উদ্যোগী হয়ে কর্মকর্তা-কর্মচারীদের দীর্ঘ দিনের এই বকেয়া গ্র্যাচুইটির টাকা প্রদানের ব্যবস্থা করেছেন। তিনি তাঁর দায়বদ্ধতা থেকে এ উদ্যোগ নিলেন। তিনি বলেন, প্রশাসক মহোদয়ের এই অনুষ্ঠানে থাকার কথা ছিল। একটি গুরুত্বপূর্ণ সভা থাকায় তিনি থাকতে পারেননি। প্রধান নির্বাহী এসময় বলেন, চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশন এখন দেনার ভারে জর্জরিত।

প্রশাসক মহোদয়ের দক্ষ নেতৃত্বের কারণে এই সমস্যা কাটিয়ে উঠা সম্ভব হচ্ছে। অবসরপ্রাপ্ত কর্মকর্তা-কর্মচারীদের উদ্দেশ্যে তিনি বলেন, অবসরে যাওয়ার সাথে সাথে আপনাদের প্রাপ্য পাওয়ানাদি পরিশোধ করতে না পারাটা চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশনের ব্যর্থতা। এ ধরনের ঘটনা লজ্জাজনক। সরকারি অবসরপ্রাপ্ত কর্মকর্তা-কর্মচারীদের জন্য অবসরকালীন সময়টা খুব একটা সুখকর নয়।

প্রধান নির্বাহী বলেন, আপনাদের প্রাপ্য গ্র্যাচুইটির বকেয়া টাকা আনুষ্ঠানিকভাবে প্রদানের কোন সুযোগ নাই। কর্পোরেশনের উচিত ছিল প্রত্যেক অবসরপ্রাপ্ত কর্মচারীর ব্যাংক একাউন্টের মাধ্যমে তাদের পাওনা টাকা পরিশোধ করা। কর্পোরেশনের বিগত সময়ে এ কাজ করতে না পারাটা দুঃখজনক।

চেক প্রদানকালে তিনি মহান আল্লাহ রাব্বুল আলামীনের দরবারে অবসরপ্রাপ্ত সকল কর্মকর্তা-কর্মচারীর দীর্ঘায়ু ও সুস্থ জীবন কামনা করেন।

NO COMMENTS

Leave a Reply