Breaking News
Home / আইন বিচার / অপরের শিক্ষাগত সনদপত্র দিয়ে দীর্ঘ ১০ বছর বিভিন্ন কোম্পানীতে চাকুরী অর্থ আত্মসাত করে উধাও রহস্য উদঘাটন;(পিবিআই)

অপরের শিক্ষাগত সনদপত্র দিয়ে দীর্ঘ ১০ বছর বিভিন্ন কোম্পানীতে চাকুরী অর্থ আত্মসাত করে উধাও রহস্য উদঘাটন;(পিবিআই)

অপরের শিক্ষাগত সনদপত্র দিয়ে দীর্ঘ ১০ বছর বিভিন্ন কোম্পানীতে চাকুরী অর্থ আত্মসাত করে উধাও রহস্য উদঘাটন;(পিবিআই)

 

আয়াজ সানি সিটিজি ট্রিবিউন ঢাকা;

 

পপুলার ফার্মাসিউটিক্যালস লিঃ কোম্পনীতে সিনিয়র মেডিকেল ইনফরমেশন অফিসার পদে কর্মরত আসামী সুজন অপরের শিক্ষাগত সনদপত্র , জন্ম সনদ এবং বায়োডাটায় নিজের ছবি সংযুক্তির মাধ্যমে বিভিন্ন কোম্পানীতে চাকুরী করে আসছিল ।

তার মোবাইল সিমের রেজিস্ট্রিশনও ভূয়া । যার কাগজপত্র ব্যবহার করা হয়েছে তিনি প্রকৃতপক্ষে মোঃ মাসুম খান । তিনি বেগম রোকেয়া বিশ্ববিদ্যালয় , রংপুরে সহকারী লাইব্রেরীয়ান পদে কর্মরত আছেন । আসামী মোঃ সুজন ও লাইব্রেরীয়ান মাসুম খান একই মেসে ভাড়া থাকতেন ।

একসাথে থাকার সুবাদে কৌশলে মোঃ সুজন লাইব্রেরীয়ান মাসুম খানের অজ্ঞাতে তার শিক্ষাগত সনদপত্র , জন্ম সনদ , বায়োডাটার ফটোকপি সংগ্রহ করে রাখে এবং উক্ত কাগজাদি দিয়ে পপুলার ফার্মাসিউটিক্যালস্ লিঃ কোম্পানী , অপসোনিন গ্রুপসহ বিভিন্ন কোম্পানীতে চাকুরী করে আসছিল ।

আসামী মোঃ মাসুম খান পপুলার ফার্মাসিউটিক্যালস লিঃ কোম্পনীতে গত ০১/০১/২০১৭ হতে ০৩/০৭/২০২১ পর্যন্ত সিনিয়র মেডিকেল ইনফরমেশন অফিসার পদে কর্মরত ছিলেন ।

উক্ত আসামী বিভিন্ন কেমিস্টের নিকট থেকে ৭,৭২,১৯৪ / -টাকা নির্ধারিত ডিপোতে জমা না করে উক্ত অর্থ আত্মসাত করে ।

পরবর্তীতে কোম্পানী বিভিন্ন মাধ্যমে যোগাযোগ করলে আসামী মোঃ মাসুম খান তার আপন ভাই মোঃ সুবিন ইসলামকে কোম্পানীর ধানমন্ডিস্থ অফিসে নিয়ে আসে এবং মোঃ সুবিন ইসলাম গত ১৫/০৭/২০২১ জিম্মাদার হিসেবে ৩০০ / -টাকার নন জুডিসিয়াল স্ট্যাম্পে অঙ্গীকার করেন যে , আগামী ১৫/১০/২০২১ তারিখের মধ্যে তার ভাই আসামী মোঃ মাসুম খান কোম্পানীর সমুদয় ৭,৭২,১৯৪ / -টাকা পরিশোধ করবেন।

পরবর্তীতে কোম্পানী কর্তৃক আসামী বরাবরে লিগ্যাল নোটিশ প্রেরণ করলেও তারা টাকা ফেরত প্রদান করেননি ।

গত ২১/১১/২০২১ তারিখে জনৈক আজাদ হোসেন , এক্সিকিউটিভ , পপুলার ফার্মাসিউটিক্যালস্ লিঃ বিজ্ঞ মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট আদালত -১৫ , ঢাকায় এ অভিযোগ করেন।

বিজ্ঞ আদালত অভিযোগটি তদন্তের জন্য পিবিআই ঢাকা মেট্রো ( উত্তর ) কে নির্দেশ প্রদান করেন । অ্যাডিশনাল আইজিপি পিবিআই জনাব বনজ কুমার মজুমদার , বিপিএম ( বার ) , পিপিএম এর সঠিক তত্ত্বাবধান ও দিক – নির্দেশনায় পিবিআই ঢাকা মেট্রো ( উত্তর ) এর বিশেষ পুলিশ সুপার জনাব মোঃ জাহাঙ্গীর আলম , বিপিএম – সেবা এর নিবিড় তদারকীতে পিবিআই ঢাকা মেট্রো ( উত্তর ) তদন্তকারী কর্মকর্তা পুলিশ পরিদর্শক ( নিঃ ) / মোহাম্মদ জুয়েল মিঞা উক্ত অভিযোগের বিষয়ে তদন্ত করে জানতে পারেন ,

আসামী মোঃ সুজন ( ৩৮ )  পপুলার ফার্মাসিউটিক্যালস্ লিঃ কোম্পানীতে নিজের প্রকৃত নাম পরিচয় গোপন করে জনৈক মোঃ মাসুম খান এর শিক্ষাগত সনদপত্র , জন্ম সনদ এবং বায়োডাটায় আসামী মোঃ সুজন তার নিজের ছবি সংযুক্তির মাধ্যমে পপুলার ফার্মাসিউটিক্যালস লিঃ এর সিনিয়র মেডিকেল ইনফরমেশন অফিসার পদে যোগদানের জন্য আবেদন করে এবং গত ০১/০১/২০১৭ সে উক্ত পদের জন্য নিয়োগ প্রাপ্ত হয় ।

পরে আসামী মোঃ সুজন চাকুরীতে যোগদানের পর হতে মোঃ মাসুম খান এর নাম ধারণ করেই কোম্পানীর একজন সিনিয়র মেডিকেল ইনফরমেশন অফিসার পদে কাজ করে আসছিল ।

চাকুরী করাকালীন সময়ে আসামী মোঃ সুজন বিভিন্ন কেমিস্টের নিকট থেকে পাওনা ৭,৭২,১৯৪ / টাকা গ্রহন করতঃ কোম্পানীর নির্ধারিত ডিপোতে জমা প্রদান না করেই গত ০৩/০৭/২০২১ চাকুরী হতে অব্যাহতি দিয়ে আত্মগোপনে চলে যায় ।

পরবর্তীতে কোম্পানী বিভিন্ন মাধ্যমে যোগাযোগ করলে আসামী মোঃ সুজন তার কথিত ( ভূয়া ) ভাই সুবিন ইসলামকে কোম্পানীর ধানমন্ডিস্থ অফিসে নিয়ে আসে এবং সুবিন ইসলাম গত ১৫/০৭/২০২১ জিম্মাদার হিসেবে ৩০০ / -টাকার নন জুডিসিয়াল স্ট্যাম্পে অঙ্গীকার করেন যে , আগামী ১৫/১০/২০২১ তারিখের মধ্যে সমুদয় টাকা পরিশোধ করবেন ।

আদালতে মামলা হওয়ায় অভিযুক্তকে এখনো গ্রেফতার করা হয় নাই।

আসামীর বিরুদ্ধে ভূয়া কাগজপত্র দিয়ে চাকুরী করে প্রতারণা ও বিশ্বাস ভঙ্গের মাধ্যমে টাকা আত্মসাতসহ অপরের রূপ ধারনের অভিযোগ এনে বিজ্ঞ আদালতে প্রতিবেদন দাখিল করা হয়েছে ।

 

About Ayaz Ahmed

Check Also

সরকারী ছুটিকে কাজে লাগিয়ে বান্দরবানে রাতের আধারে পাহাড় কাটার মহোৎসব

সরকারী ছুটিকে কাজে লাগিয়ে বান্দরবানে রাতের আধারে পাহাড় কাটার মহোৎসব   সিটিজি ট্রিবিউন বান্দরবান প্রতিনিধি, …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *